আমৃত্যু মানুষের পাশে থাকতে চাই: এমপি আলি আজম মুকুল

গোলাম মাহমুদ শাওনঃ
বিপদেই বন্ধুর পরিচয়। সুদিনে বন্ধুর অভাব হয় না। রাজনীতি অনেকেই করেন। ভোটের সময় এলাকায় এসে খেদমত নামক মায়াকান্না করেন। বৈশ্বিক দূর্যোগ করোনা পরিস্থিতিতে তারা আজ কোথায়? তারা ভোটের সময় আসবেন। বিপদের সময় নয়। তিনি বলেন, আমি স্ত্রী, সন্তান ফেলে রেখে আজ ১ মাস ২ দিন ধরে আপনাদের পাশে আছি। আমার সামর্থ্য মতো আপনাদেরকে সহযোগিতা করছি। আমার মা-বাবা নেই। আপনারা আমার মা-বাবা। তাই ভরিষ্যতে ও আপনাদের খেদমতে থাকব। ভোলা-২ আসনের সংসদ সদস্য আলহাজ্ব আলী আজম মুকুল এমপি শনিরবার সকালে ভোলার বোরহানউদ্দিন উপজেলায় তাঁর ব্যক্তিগত অর্থায়ণে ২০ হাজার পরিবারের মাঝে ত্রাণ বিতরণ কালে এসব কথা বলেন। তিনি বলেন, প্রথম পর্যায়ে ৭ হাজার পরিবারের মাঝে ত্রাণ, নগদ অর্থও বিতরণ করা হয়েছে। ২০ রমজান থেকে ব্যক্তিগত অর্থায়ণে ৩য় পর্যায়ে আবার ত্রাণ বিতরণ করবেন। এ সময় তিনি মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর ঘোষিত ৩১ দফা প্রস্তাবনা মেনে চলার আহ্বান জানান।
মঙ্গলবার সাচড়া ইউনিয়নের দরুন বাজার স্কুল মাঠে সামাজিক দুরত্ব বজায় রেখে বিতরণ কার্যক্রমের ৪র্থ দিনে সাচড়া, গংগাপুর, দেউলা ও মানিকা ইউনিয়নের ২হাজার দরিদ্র, কর্মহীন, মুচি পরিবারের মাঝে ৮ আইটেম সম্মিলিত খাদ্য সামগ্রী তুলে দেন। পর্যায়ক্রমে দৌলতখান ও বোরহানউদ্দিন উপজেলার ১৮টি ইউনিয়ন ও ২ পৌরসভার জনগণের মাঝে এসব খাদ্যসামগ্রী বিতরণ করা হবে।
এ সময় তাঁর সঙ্গে আরো ছিলেন উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আবুল কালাম আজাদ, পৌর মেয়র মোঃ রফিকুল ইসলাম, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ বশির গাজী, সাচড়া ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মোঃ মহিবুল্যাহ মৃধা প্রমুখ।

আপনার মন্তব্য জানান