ভোলায় জলবায়ু পরিবর্তন বিষষক সচেতনতা বৃদ্ধিতে সভা

ভোলায় জেলা প্রশাসনের উদ্দ্যেগে এবং ইউনিসেফের সহযোগিতায় জলবায়ুু পরিবর্তনে সচেতনতা বৃদ্ধি ও সক্ষমতা তৈরির লক্ষ্যে তরুণদের সাথে নেটওয়াকিং সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (২৩ মে) সকালে ভোলা জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের হল রুমে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

সভায় অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মৃধা মো: মোজাহিদুল ইসলামের সভাপতিত্বে নেটওয়ার্কিং সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ভারপ্রাপ্ত জেলা প্রশাসক মো: মাহমুদুর রহমান।

এসময় বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন জেলা যুব উন্নয়ন বিষয়ক কর্মকর্তা জাহাঙ্গির উদ্দিন আহমদ, জেলা ত্রাণ ও পুর্নবাসন কর্মকর্তা এবিএম আকরাম হোসেন, ইউনিসেফের শিশু সুরক্ষা কর্মকর্তা জামিল হাসান, এলজিসি প্রকল্পের জেলা সমন্বয়কারী আবদুস সালাম।

কর্মশালা পরিচারনা করেন বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ের পরিবেশ বিজ্ঞান বিভাগের প্রভাষক আসিফ মইনুর চৌধুরী। সেমিনারের সার্বিক দায়িত্ব পালন করেন ইয়ুথ নেট বরিশাল প্রতিনিধি মো: সোহানুর রহমান, ইয়ুথ পাওয়ার ইন বাংলাদেশের নির্বাহি পরিচালক আদিল হোসেনে তপু।

কর্মশালায় জলবায়ু পরির্বতন ঝুঁকি ও পরিবর্তন জনিত ক্ষতি কমিয়ে আনা এবং মোকাবেলায় যুব সমাজের করনিয় বিষয়ে সম্পর্কে আলোচনা করা হয়। এসময় ইয়ুথ পাওয়ার ইন বাংলাদেশ, ভোলা যুব রেড ক্রিসেন্ট, কোষ্টট্রাস্ট আইইসিএম প্রকল্পের কিশোর কিশোরি ক্লাব সদস্য, হেল্প এন্ড কেয়ার, ধ্রবতারা, এনসিটিএফ সহ কয়েকটি স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন অংশ গ্রহণ করে।

এসময় বক্তরা বলেন, জলবায়ু পরিবর্তন ব্যাপকভাবে প্রভাব ফেলছে দ্বীপ জেলার ভোলায় ২২ লাখ মানুষের উপর। প্রতিনিয়িত ঘূর্নিঝড়, জলোচ্ছাস, টর্নেডো, নদীভাঙ্গনের পাশাপাশি জলবায়ু পরিবর্তনের প্রভাবে এর মাত্রা ও তীব্রতা দিন দিন বৃদ্ধি পাচ্ছে। ফলে সবচেয়ে ঝুঁকির মধ্যে পড়ছে এই জেলার নারী ও শিশুরা। তাই জলবায়ু পরিবর্তনের প্রভাবের হাত থেকে রক্ষার জন্য তরুনদের সক্ষমতা বৃদ্ধি করতে হবে। তরুণদের আগামীর বাংলাদেশ ও জলবায়ু পরিবর্তন মোকাবেলার মানুষরে সমস্যার সঙ্গে খাপ খাইয়ে নেওয়ার জন্য কাজ করতে হবে বলে জানান।

Leave a Reply

Your email address will not be published.